শনিবার, ২৩ জানুয়ারী ২০২১, ০২:০২ অপরাহ্ন
Logo
শিরোনাম :
মাদারীপুরের শিবচরে রোগীবাহী এ্যাম্বুলেন্স খাদে পড়ে নিহত,২ আহত ৩ মহান আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে ‘এওলাসার সমাজ কল্যাণ সংস্থা’র ২দিনের আয়োজন ভূমি ও গৃহহীনদের ঘর প্রদান উপলক্ষে মাদারীপুর জেলা প্রশাসকের সংবাদ সম্মেলন কঠিন বাস্তবতা তুমি – হাসনাহেনা রানু নৌকা মার্কা ছাড়া নন্দীগ্রামে মানুষের উন্নয়ন সম্ভব নয় মুসলিম দেশগুলোর ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিলেন নতুন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বাংলাদেশের কাছে করোনার টিকা হস্তান্তর করলো ভারত নন্দীগ্রাম পৌরসভা নির্বাচনে যে কোন অপ্রীতিকর ঘটনা প্রশাসন কঠোর হস্তে দমন করবে জকিগঞ্জ থানার ওসির দাবী ‘বিচারককে উৎকোচ দেয়ার জন্য ক্লোজ হননি এসআই মোঃ রাজা মিয়া
নোটিস :
আমাদের সাইট-এ প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে,যোগাযোগ করুন>> 01712-129297>>>01712-613199>>>01926-659742>>>

ভোটার কার্ডে দুই সন্তানের চেয়ে মায়ের বয়স কম, বয়স্ক ভাতা থেকে বঞ্চিত বৃদ্ধ এক মা!

জকিগঞ্জ প্রতিনিধি: / ৯২ বার
আপডেটে : শুক্রবার, ২৩ অক্টোবর, ২০২০

জকিগঞ্জ প্রতিনিধি:: জকিগঞ্জ উপজেলার সুলতানপুর ইউনিয়নের বিলপাড় গ্রামে ছলিমা বিবি নামে ৮৫ বছরের বৃদ্ধ মহিলার ভোটার কার্ডে বয়স ৪৮ বছর হওয়ায় বয়স্ক ভাতা থেকে বঞ্চিত রয়েছেন বলে জানা যায়।
ছলিমা বিবি বলেন, ব্রিটিশ শাসন আমল আমার মনে আছে এসময় আমি তাদের শাসন সম্পর্কে বুঝতে পারি। এই শাসন ১৯৪৭ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত স্থায়ী হয়েছিল যখন ভারতীয় উপমহাদেশের ব্রিটিশ প্রদেশগুলিকে ভাগ করে দুটি অধিরাজ্য বা ডমিনিয়ন সৃষ্টি করা হয়। পরে পাকিস্তানের পূর্ব অংশ বা পূর্ব পাকিস্তান ১৯৭১ সালে স্বাধীন রাষ্ট্র গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ-এ পরিণত হয়। এসময় ছলিমা বিবি দাম্পত্য জীবনে দুই সন্তানের অধিকারী।
আরো বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সুযোগ্য কন্যা গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যাশা অংশ হিসেবে ২০০৮ সালে নতুন ভোটার কার্ড করা হয়। এ_সময় ভুলবশত আমার ভোটার কার্ডে বয়স দেওয়া হয় ৪৮ বছর, যা আমার ছেলেমেয়েদের চেয়েও বয়স কম। ভোটার কার্ডে দেখা যায় ছলিমা বিবির জন্ম ৫ মার্চ ১৯৭২ খ্রিষ্টাব্দে ও তার দ্বিতীয় ছেলের জন্ম ১ ফ্রেব্রুয়ারী ১৯৭০ খ্রিষ্টাব্দে।
স্থানীয় সূত্র জানা যায়, ছলিমা বিবি এই বৃদ্ধ বয়সের মানুষের বাসায় বাসায় কাজ করে জীবিকা নির্বাহ চালিয়ে যেতে প্রতিনিয়ত হিমশিম খাচ্ছেন তিনি। অসুস্থ স্বামী আব্দুর রবকে নিয়ে তার পরিবার। আব্দুর রব ও ছলিমা বিবির ৩ মেয়ে ও ২ ছেলে, ছেলেরা দিনমজুরের কাজ করে তাদের সংসার চালাতে অনাহারে-অর্ধাহারে দিনযাপন করছে। ৫-৬ শতক জায়গায় ছেলে-মেয়ে নাতি-নাতনিসহ তিনটি পরিবার বসবাস করছে। সেই জায়গাটুকুও স্থানীয় একটি পরিবারে দেওয়া সহায়তার অংশ। দেখা যায় সেই জায়গায় দুটি রুম তৈরি করে দুই ছেলে পরিবার নিয়ে বসবাস করছেন। কিন্তু নির্ধারিত বৃদ্ধা মা বাবার জন্য কোন মাথা গোঁজার রুম নেই। এই বৃদ্ধ বয়সে মৃত্যুর প্রহর গুনছে তারা স্থানীয়দের দাবি সরকারি সহায়তার মাধ্যমে নির্ধারিত একটি চালের নিচে যেন তাদের মৃত্যুর ব্যবস্থা করে দেওয়া হয় এই অনুরোধ জানিয়েছেন স্থানীয়রা।
ছলিমা বিবি বলেন, কয়েকবার স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের ইউপি সদস্যের কাছে বয়স্ক ভাতার জন্য অনুরোধ জানিয়েছেন। কিন্তু ভোটার কার্ডের জন্য বয়স্ক ভাতা থেকে বঞ্চিত রয়েছে তিনি। এত ঘুরেও ভাতার কার্ড না পেয়ে শেষ বয়সে তিনি হতাশ। তিনি সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে ভাতার কার্ডের দাবি জানান।
ছলিমা বিবি’র বয়স্ক ভাতার ব্যাপারে জকিগঞ্জ উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা বিনয় ভূষন দাস বলেন, ভোটার আইডি কার্ড সংশোধন করতে হবে। বৃদ্ধ মহিলাকে সাহায্য করা একান্ত প্রয়োজন কিন্তু ভোটার কার্ড সংশোধন না করেলে বয়স্ক ভাতা দেওয়ার কোন সুযোগ নেই। ভোটার কার্ড সংশোধন করা হলে আমরা সর্বাত্মক চেষ্টা করব।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ
Theme Created By ThemesDealer.Com